তেঁতুলবাড়ীয়া প্রতিনিধিঃ  মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার সীমান্তবর্তি তেঁতুলবাড়ীয়া গ্রামের বিজিবি ক্যাম্পপাড়া থেকে রেশমা খাতুন (১৭) নামের এক গৃহবধুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ । রেশামা দেবীপুর গ্রামের আতাহার আলীর মেয়ে, বছর দুই আগে তেঁতুলবাড়ীয়ার হাসিবুল ইসলাম শান্তর সাথে বিয়ে হয় তার, বিয়ের পরে সংসারের নানা কারনে তাদের কলহ লেগে থাকত । অনেকের ধারণা দাম্পত্য কলহ থেকে মুক্তি পেতে রেশমা এই আত্নহত্যার পথ বেছে নিয়েছেন । রেশমার চাচা আলতাফ হোসেন মেহেরপুর বার্তা টোয়েন্টিফোরকে বলেন, হত্যার কথা ধামচাপা দেবার জন্য তার স্বামী এই আত্মহত্যার নাটক সাজিয়েছে, মূলত তাকে শ্বাসরোধে হত্যা করে সিলিঙের সাথে আটকিয়ে রেখেছিল এবং আমরা ও প্রতিবেশীরা আসার পুর্বেই তাকে মাটিতে  নামিয়ে রাখা হয় । এখন এই অপপ্রচার বন্ধ করে তার স্বামী হাসিবুল ইসলাম শান্তর দৃষ্টান্ত মুলুক শাস্তির দাবি করেন রেশমার পরিবার । স্থানীয় ইউপি সদস্যা কিবরিয়া বলেন,  হত্যা নাকি আত্নহত্যা তা নিয়ে আমারো সন্দেহ রয়েছে, আমার জানা মতে তাদের মাঝে বেশ কয়েক মাস দাম্পত্য কলহ  চলছিল।  এদিকে হাসিবুল ইসলাম শান্তর পরিবারের দাবি, রেশমা আত্নহত্যা করেছে এবং ভোর রাতে তারা সিলিং ফ্যান থেকে ঝুলুন্ত অবস্থায় মাটিতে নামান । গাংনী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ ওবাইদুর রহমান জানান, ঘটনার পর লাশ উদ্ধার করে মেহেরপুর সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে, ময়না তদন্তের পর জানা যাবে হত্যা নাকি আত্নহত্যা । এই পরিস্থিতিতে তেঁতুলবাড়ীয়া এলাকার বিজিবি ক্যাম্পপাড়ায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

স্পিকার কেনার ৫টি টিপস

এপ্রিল ২৭, ২০২০